রবিবার, ১৭ অক্টোবর ২০২১, ০৩:৩৪ পূর্বাহ্ন

কুষ্টিয়ার কাঞ্চনপুরে তুষার চেয়ারম্যান ও আওয়ামীলীগ নেতা নজরুল সমর্থকদের সংঘর্ষে আহত ৪

নিজস্ব প্রতিবেদক: / ১৯৪ বার নিউজটি পড়া হয়েছে
আপডেট টাইম : রবিবার, ১৭ অক্টোবর ২০২১, ০৩:৩৪ পূর্বাহ্ন

কুষ্টিয়ার কুমারখালীতে আধিপত্য বিস্তারে মসজিদের কমিটি গঠন করাকে কেন্দ্র করে আওয়ামীলীগের দুইপক্ষের সংঘর্ষে হয়েছে।এতে উভয় পক্ষের ৪ জন আহত হয়েছে।আহতরা হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে।এছাড়াও এসময় ভাংচুর করা হয়েছে ৫ টি ঘরবাড়ি। মঙ্গলবার (১ ডিসেম্বর) সকাল সাড়ে ৮ টার দিকে উপজেলার চাদপুর ইউনিয়নের কাঞ্চনপুর গড়েরমাঠ ব্রীজ এলাকায় এসংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

আহতরা হলেন- ইউনিয়ন কৃষকলীগের সদস্য এবং ওই এলাকার মৃত আব্দুল কাদের বিশ্বাসের ছেলে আব্দুল আজিজ (৫২) ও আব্দুল সজিব (৪৮), মৃত চাদ আলীর ছেলে রেজাউল (৫৫) এবং মান্নান বিশ্বাসের ছেলে নিশান (১৪)।

এলাকাবাসী সুত্রে জানা গেছে, চাদুপুর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক নজরুল ইসলাম সমর্থিত আব্দুল আজিজ ও ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান রাশেদুজ্জামান তুষার সমর্থিত সাইদ এর মধ্যে আধিপত্য বিস্তারে বিরোধ চলে আসছিল। এরমধ্যে গত সোমবার (৩০ নভেম্বর) বাদ এশা কাঞ্চনপুর পশ্চিমপাড়া জামে মসজিদের সাধারণ সম্পাদক রশিদ জোয়ার্দারকে বাদ দিয়ে নতুন কমিটি গঠনের জন্য মসজিদের মধ্যে একটি বৈঠক হয়।এসময় আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক সমর্থিত আজিজ নামের একজন উত্তেজিত হলে উভয়পক্ষের মধ্যে হাতাহাতি হয়।এরই জের ধরে চেয়ারম্যান সমর্থিত সাইদের অষ্টম শ্রেণি পড়ুয়া ভাতিজা নিশান মঙ্গলবার সকালে কোচিং শেষে বাড়ি ফেরার পথে আজিজ সমর্থিত কয়েকজন এলোপাতারি মারধর করে।এরপর বিষয়টি জানাজানি হলে সাইদের সমর্থকরা দেশীয় অস্ত্র সস্ত্রে সজ্জিত হয়ে আজিজদের উপর হামলা চালালে আজিজ, সজিব ও রেজাউল নামের তিনজন গুরুতর আহত হয়।আহতদের উদ্ধার করে কুমারখালী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়।তন্মধ্যে আজিজের অবস্থা আশংঙ্খাজনক হওয়া কুষ্টিয়ার ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট্য হাসপাতালে রেফার্ড করা হয়।

এবিষয়ে চাদপুর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক নজরুল ইসলাম বলেন, উভয়ই আওয়ামীলীগের লোক।তুচ্ছ ঘটনায় দুইপক্ষের সংঘর্ষে ৪ জন আহত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি রয়েছে।এছাড়াও ৫ টি ঘরবাড়ি ভাংচুর হয়েছে। চেয়ারম্যান সমর্থিত সাইদ বলেন, মসজিদের সাধারণ সম্পাদক কোন সভায় উপস্থিত থাকেনা।বার্ষিক ধান আদায়ের জন্য নতুন কমিটি গঠন করা নিয়ে সোমবার রাতে আজিজদের সাথে একটু হাতাহাতি হয়।এরপর মঙ্গলবার সকালে আমার ভাতিজা নিশান কোচিং করে ফেরার পথে ওরা মারধর করলে আমাদের লোকজন আক্রমণ করে।

ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে কুমারখালী থানার ওসি (ভারপ্রাপ্ত) রাকিব হাসান মুঠোফোনে বলেন, মসজিদের কমিটি নিয়ে আওয়ামীলীগের দুইপক্ষের মধ্যে সংঘর্ষে উভয় পক্ষের ৪ জন আহত হয়েছে।তিনি আরো বলেন,এবিষয়ে এখনও কোনো লিখিত অভিযোগ পাইনি।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর ....

এক ক্লিকে বিভাগের খবর