মঙ্গলবার, ১৭ মে ২০২২, ০৮:৫৩ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
শিরোনাম :
কুমারখালী উপজেলা ও পৌর বিএনপির প্রতীকী অনশন পালন কুষ্টিয়ায় পণ্যে পাটজাতদ্রব্য ব্যবহার না করার অপরাধে জরিমানা কিশোরগঞ্জে ভয়াবহ অগ্নিকান্ডে ২৫টি পরিবারের ৮৩টি বসতঘর পুড়ে ভস্মীভ’ত কুষ্টিয়ার ভেড়ামারায় বিএনপির প্রতিকী অনশন পালিত কুষ্টিয়ায় র‌্যাবের অভিযানে গাঁজাসহ ২ জন মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার বিজ্ঞান শিক্ষার প্রসার ঘটিয়ে জনগনকে জনসম্পদে পরিনত করতে হবে : ব্যারিস্টার সেলিম আলতাফ জর্জ, এমপি ফতুল্লায় গার্মেন্টস শ্রমিকদের সড়ক অবরোধ পুলিশের লাঠিচার্জ, টিয়ারশেল নিক্ষেপ রাজনৈতিক ছত্রছায়ায় থাকায় তালিকা হচ্ছে না নিয়ন্ত্রণহীন অপরাধীরা সাংবাদিকদের মধ্যে আর কোনো বিভক্তি থাকবে না : রুহুল আমিন গাজী কুষ্টিয়ায় তিন দিনেও খোঁজ মেলেনি অপহৃত মাদ্রাসা ছাত্রের, ফোনে মুক্তিপণ দাবি

কুষ্টিয়ায় খেঁজুরের রস সংগ্রহে ব্যস্ত সময় কাটাচ্ছে গাছিরা

নিজস্ব প্রতিবেদক: / ২১৮ বার নিউজটি পড়া হয়েছে
আপডেট টাইম : মঙ্গলবার, ১৭ মে ২০২২, ০৮:৫৩ অপরাহ্ন

কবি সুফিয়া কামাল বলেছেন- সবুজ পাতার খামের ভিতর হলুদ গাঁদা চিঠি লেখে, কোন পাথারের ওপার থেকে আনল ডেকে হেমন্তকে । “আসি আসি করে শীত বুঝি আর আসতে খুব দেরি নেই । চলছে হেমন্তকাল । হেমন্তের হাল্কা শীতের আবহাওয়াতে কুষ্টিয়া সহ আশ-পাশের জেলা ও গ্রাম গঞ্জে চলছে খেজুর গাছ থেকে খেজুরের রস সংগ্রহের কাজ । সকালের দূর্বাঘাস ও পত্রপল্লবে এসেছে শিশিরের ছোঁয়া ।

রাতের শেষ ভাগে শিশিরের টাপুর-টুপুর মন মাতানো শব্দে পুলকিত করেছে প্রকৃতিকে । এ যেন হেমন্তর আগমন বার্তা । তাই শুরু হয়েছে গ্রাম বাংলার ঐতিহ্যের প্রতীক খেজুর গাছ থেকে রস সংগ্রহের কাজ । খেজুর গাছের সাথে সংশ্লিষ্ট গাছিরা ব্যস্ত সময় কাটাচ্ছে । জানাযায় ৯০-৯৫’র দশকে কুষ্টিয়া, যশোর, খুলনার দক্ষিণাঞ্চলের প্রত্যন্ত অঞ্চল জুড়ে যতদূর চোখ যেত তা ছিল সবুজের মহা সমারোহ । সোনালী ফসলে ভরে থাকত সারা মাঠ । ক্ষেতের আইল দিয়ে দেখা মিলত হাজার হাজার খেজুর গাছের সারি । কিন্তু কয়েক বছরের ব্যবধানে সবকিছুই যেন অতীত ।

বর্তমানে বলা চলে অপরিকল্পিত নগরায়নের প্রতিযোগিতায় ইট, ভাটা ও শিল্প কল-কারখানায় বিরামহীন গতিতে গিলে খাচ্ছে কালের স্বাক্ষী খেজুর গাছ গুলোকে । শীতের সকালে সোনালী রোদে বসে মিষ্টি খেজুরের রসের স্বাদ ও যেন তাই আজ ভুলতে বসেছে চিরচেনা কুষ্টিয়া সহ পাশের জেলার মানুষেরা । তবুও যেখানে যে গাছগুলো এখনও নিরবে দাঁড়িয়ে আছে সেগুলোকে নিয়েই যেন গাছিদের শুরু হয়েছে অন্য রকম ব্যস্ততা । সব মিলিয়ে শরৎ শেষে হেমন্তের প্রকৃতিই জাগান দিচ্ছে শীত এসেছে । তাই গাছের সাথে সাথে গাছিরাও যেন তাদের পেশা পরিবর্তন করে চলে গেছে অন্য পেশায় । কোন কোন এলাকায় যারা এখনও বাপ-দাদার পেশা আঁকড়ে পড়ে আছে গাছির পেশায় তাদেরও যেন যায় যায় অবস্থা ।

এ প্রসঙ্গে সাথে নাটোর জেলার, লালপুর থানার প্রবীণ গাছি সাইদুল ও মন্টুর সাথে কথা হয় । কেমন যাচ্ছে তাদের দিন-কাল এমন প্রশ্ন করতেই যেন বড় একটা দীর্ঘশ্বাস, তারপর ছল-ছল চোখে বলেন গ্রামে এখন খেজুর গাছ নেই তাই তাদের আর ভালো থাকা । কুষ্টিয়ার বটতৈল কেনাল পাড়া, ঢাকাগ্রাম, মিনাপাড়া, ফুলবাড়ি, পোড়াদহ, মিরপুর, ঝিনাইদহ,যশোর, আলমডাঙ্গা, খুলনা সহ সেদিকের মাঠে এখনও কিছু কিছু গাছ রয়েছে । শীতের আগমনি বার্তাতে খেজুর গাছ নাকি গাছিদের আহব্বান করে রস সংগ্রহ করার জন্য ।

 


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর ....

এক ক্লিকে বিভাগের খবর